ঢাকা,  বুধবার,  মার্চ ২০, ২০১৯ | ৬ চৈত্র, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ
For problem seeing Bangla click here
সদ্য খবর
English

গ্যাসের দাম নিয়ে গণশুনানি শুরু

ঢাকা, ১১্ই মার্চ (ইউএনবি)

তরলীকৃত প্রাকৃতিক গ্যাস (এলএনজি) আমাদনির জেরে রাষ্ট্রীয় মালিকানাধীন পেট্রোবাংলার বার্ষিক ক্ষতি হবে ২৪ হাজার ৫৪০ কোটি টাকা।

গ্যাসের দাম বাড়ানোর প্রস্তাব নিয়ে সোমবার থেকে রাজধানীর টিসিবি মিলনায়তনে শুরু হওয়া বাংলাদেশ এনার্জি রেগুলেটরি কমিশনের (বিইআরসি) চার দিনব্যাপী শুনানির প্রথম দিন এ তথ্য জানানো হয়েছে।

শুনানিতে অংশ নিয়ে পেট্রোবাংলার চেয়ারম্যান রুহুল আমিন বলেন, দেশে গ্যাসের চাহিদা পূরণে তারা আগামী এপ্রিল থেকে যখন ১ হাজার এমএমসিএফডি (মিলিয়ন কিউবিক ফিট পার ডে) এলএনজি আমদানি শুরু করবেন তখন তাদের আর্থিক হিসেবে এ বিপুল ঘাটতি দেখা দেবে।

‘তাই, ক্ষতিতে ভারসাম্য আনতে গ্যাসের মূল্য বাড়ানো অপরিহার্য,’ জানান পেট্রোবাংলার চেয়ারম্যান। তিনি গণশুনানিতে বিইআরসির কাছে গ্যাসের দাম প্রতি ঘনমিটার ৭.১৭ টাকা থেকে বাড়িয়ে ৯.৫৫ টাকা করার আবেদন জানান।

পেট্রোবাংলা তাদের প্রস্তাবে জানায়, তারা বিভিন্ন গ্যাস উৎপাদনকারী কোম্পানিগুলোর কাছ থেকে গড়ে সাড়ে ৬ টাকা ইউনিটে গ্যাস ক্রয় করছে। সেখানে প্রতি ইউনিট এলএনজিতে খরচ হচ্ছে ৩৯.৮২ টাকা।

বর্তমানে পেট্রোবাংলা ১ হাজার এমএমসিএফডি ঘাটতির বিপরীতে ৫০০ এমএমসিএফডি এলএনজি আমদানি করছে। যেখানে গ্যাসের সরবরাহ রয়েছে ৩ হাজার ১০০ এমএমসিএফডি।

এদিকে, শুনানিতে অংশ নিয়ে রাষ্ট্রীয় প্রতিষ্ঠান গ্যাস ট্রান্সমিশন কোম্পানি লিমিটেডও (জিটিসিএল) গ্যাস সরবরাহে দাম বাড়ানোর প্রস্তাব দিয়েছে।

বিইআরসি চেয়ারম্যান মনোয়ার ইসলামের সভাপতিত্বে গণশুনানিতে সংস্থার অন্য সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন। সেই সাথে বিভিন্ন ভোক্তা সংগঠনের প্রতিনিধি ও জ্বালানি বিশেষজ্ঞরা শুনানিতে অংশ নেন।

এখানে মন্তব্য করুন

আপনার ইমেইল জনসমক্ষে প্রকাশ করা হবে না

*

You can use these HTML tags and attributes: <a href="" title=""> <abbr title=""> <acronym title=""> <b> <blockquote cite=""> <cite> <code> <del datetime=""> <em> <i> <q cite=""> <strike> <strong>